অপেক্ষা

 

অনিরুদ্ধ
অনেক অপেক্ষায় বসে ছিলাম
তুমি আসবে বলে,
একটি কুমারী সকালের
হাত ধরে।
হিম নিশাজলে স্নানোৎসবে
মাতবে বলে নরম ঘাসের
ডগায় শিশির কণা
নিত্য নাচনি ছন্দে তাল তুলেছে।
চায়ের পেয়ালা হাতে জানালার
বাইরের সীমানায় চোখ
রেখে খুঁজে ফিরেছি দুটি
শালিক আধারের খেলা।
ধোঁয়া উঠা চায়ে কখন যে
বরফ গলেছে টের পাইনি,
সাথে কিছু লোনাজল যুক্ত
হয়েছে মনের অজান্তেই।
অনি, আমি চেয়েছিলাম ঘর
আর তুমি চেয়েছিলে নির্বাসন ;
না, জীবন থেকে নয় —
জলে থেকেও জল ছোঁবে না
এমন —-:
আমিও অপেক্ষায় আছি
তোমার অনাসক্ত নির্মোহ
জলশূন্য অস্তিত্বে শ্রাবণ
আনবো বলে।

 

মঞ্জিলা শরীফ – কবি ও সাহিত্যিক

আরও পড়ুন