মায়ের আবদার

এস এম ফয়েজ রহমান

চাকরি করতাম দেশের ভেতর
মা ছিলেন সাথে
সদা ব্যস্ত থাকতেন আমার
কষ্ট না-হয় যাতে
হঠাৎ পেলাম বদলির আদেশ
ছাড়তে হবে দেশ
সেদিন থেকেই মা আমার
চিন্তা- ক্লীষ্ট বেশ
জীবন-সঙ্গী ছক আঁকছে
কোথায় কোথায় ঘুরবে
সুযোগ এসেছে আকাশ পথে
ইচ্ছে মত উড়বে
ভাইয়া বলে খুশির খবর
যাত্রা শুভ হোক
সুযোগ থাকলে জানাস আমায়
খোলা রাখিস চোখ
ভাবী বলে নাচতে নাচতে
আনবে দামী গহনা
ভাতিজার জন্য খেলনা আনবে
আরকী আনবে কহনা
বোনটা আমার বেজায় খুশি
বলে আমায় শোন
সেরা সবই চাই আমার
ব্যত্যয় হবেনা কোন
বাবাও আমার খুশি অনেক
গর্ব হচ্ছে তার
এই সুবাধে বিদেশ ঘোরার
সুযোগ হলো তার
মা কেবল ঘরের কোনে
চুপটি মেরে আছে
ডাকে আমায় সোনা পাখী
আয় একটু কাছে
কাল থেকে ঘরটা আমার
শুণ্য হয়ে রবে
বলনা তুই আমায় একবার
ফিরবি আবার কবে
জানিস সোনা তুইযে আমার
সাত রাজার ধন
মনটা শুধু দেখতে চায়
তোরে প্রতি ক্ষণ
শরীর মনের যত্ন নিবি
ভুল না-হয় যেন
নিয়ম করে খাবি ঘুমাবি
অনিয়ম করবিনা কোন
সুযোগ পেলেই ফোন করবি
থাকিস সদা ভালো
তুইযে আমার চোখের মণি
এই জগতের আলো
ভালোই ভালোই তুই আবার
আসবি কোলে ফিরে
আমার জীবনের সকল চাওয়া
কেবল তোকে ঘিরে।

কবিঃ সাহিত্যিক ও বিশিষ্ট ব্যাংকার

আরও পড়ুন