আমাদের গাঁ

মাজেদ ইসলাম

মাটির সড়ক ছড়াইয়াছে আঁকাবাঁকা
দু’ধারে টিনের ঘর মাঝেমাঝে ফাঁকা
বাড়িতে বাড়িতে বাঁশের ঝোপঝাড়
উঠানের পাশে পাট-কাঠির রান্নাঘর

সারা মৌজা জুড়ে ধান ভুট্টার চাষ
পুকুরের জলে সমাবেত পাতি হাঁস
নলকূপ চাপিয়া উঠাইয়া আনি পানি
শরীর ভিজাইয়া কৃষক দুর করে গ্লানি

যদি আকাশে মেঘ করে হানা ছুটিয়া চলে মা
সযত্নে রাখিতে খড়কুটো হাঁস মুরগীর ছানা
তাড়াহুড়ো করে গরু ছাগল রাখে গোয়াল ঘরে
পলিথিন বিছায় শিঁথে যেন মাঠি ক্ষয়ে না পড়ে

কোকিল ডাকে সঙ্গী খুঁজে পাখির কিচিরমিচির
ধান শুকাইতে প্রহরী লাগে শালিকেরা করে ভিড়
আমের মুকুলে ভ্রমর সকলে গুনগুনিয়ে গান
ফল ফলাতে মৌমাছি  রাখে বিশেষ অবদান

গাঁয়ের পাশে বহমান ছিল ক্ষীর নামের এক নদী
নদীর টেঁকে জেলেদের বাস তা হতে সাং তেঘুরী
সন্ধ্যা কালে সুর্য্য ঢলে যায় যখন পশ্চিমে
মুসল্লিরা সব এক কাতারে আমাদের গ্রামে।

লেখকঃ কবি।

আরও পড়ুন