রবের স্মরণ

ফারহীন আল মুনাদি

অশ্রুচোখে আকাশপানে
নীরব চেয়ে তুমি
জল তরঙ্গের আন্দোলনে
ঝরছে মিনতি।
.
আজকে আমার হৃদ-শহরে
উঠলো কেন ঝড়?
উথালপাতাল ঊর্মিমমালায়
ভাঙছে মনের ঘর!
.
অভিযোগের তীক্ষ্ম ফলা আজকে
রবের ‘পরে
আমাকেই তুমি পোড়ালে কেন
তীব্র দহনে!
.
কিপ্টেমি কেন আমার তরেই
তব দয়া বিলাতে
সুখ পরশের ছোঁয়া নেই আজ
কোন অপরাধে!
.
দুঃখবোধে, হুঁশ হারিয়ে
ভুলে যাওয়ার ঠুনকো ছলে
নিজের সাফাই গাও!
আজকে তবে একটু ভেবে
চোখের পর্দা আলতো ফেলে
সত্যভাষণ দাও!
.
যেদিন তুমি সুখে ছিলে
ধরার বুকে খুব দাপিয়ে
রবের স্মরণ কই?
মধ্যরাতের গল্পমাঝে
হাস্যরসের ফুলঝুড়িতে
তাঁর অভাব যে বড়ই!
.
সুসময়ে রবকে ছেড়ে
কৃতজ্ঞতার সবক ভুলে
তুমি ছিলে সুখী
আজকে কেন দুঃখকালে
কৃতকাজের দায় এড়িয়ে
রবকে করছো দোষী!
.
বন্ধু তুমি স্বপ্ন গাঁথো
আশার মালা গলে পড়ো
রবকে ভুলো না
পথের মোড়ে একটু থেমে
তার বাণীকে সঙ্গে নিতে
কসুর করো না –
‘যদি তোমরা হও কৃতজ্ঞ
বাড়াবো প্রচুর,
কুতঘ্নতার শাস্তি আমার
বড়ই কঠোর!

আরও পড়ুন

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.