পরম স্বজন

আবু জাফর বিশ্বাস

মা-বাবা;  মনের ক্বাবা
একই সূতায় গাঁথা,
বাবা সবার মাথার উপর
শীতল ছায়া ছাতা।

সৃষ্টিকুলের শ্রেষ্ঠ যিনি
গর্ভধারিণী মা,
ত্রিভুবনের তাঁর গুণের
হয়’না উপমা।

মায়ের গর্ভে সবার জন্ম
আলোর ভুবন দেখা,
পায়ের নিচে রয়েছে স্বর্গ
ললাটে ভাগ্য লেখা।

মমতা-মায়া স্নেহ ছায়া
আদর দিয়েছে কত,
উষ্ণ বুকে রাখতো সুখে
পাখির ছানার মত।

তপ্ত গ্রীষ্মে শরীর ঝলসে
দগ্ধ হয়ে জ্বলে,
বটবৃক্ষের শীতল ছায়া
মায়ের আঁচল তলে।

গর্ভধারিণী এমন আদরিনী
ত্রিভুবনে আর নাই,
সময় থাকতে হবে নিতে
পায়ের নিচে ঠাই।

মা’য়ের মূল্য স্বর্গ তুল্য
খোদার শ্রেষ্ঠ দান,
জগত মাঝে মন্দ কাজে
ক্ষমা ভিক্ষা চান।

ভাই বড়ধন রক্তের বাঁধন
ছিন্ন হবার নয়,
কঠিন বিপদে সেই কাঁদে
দুঃখে সঙ্গী হয়।

এক উদরে অনেক আদরে
যারা ভাই-বোন;
শ্বশুর বাড়ীর মধুর হাড়ি
তবু পোড়ে মন।

পিতা-মাতা  ভগ্নী-ভ্রাতা
এরাই পরম স্বজন,
একই রক্ত হয়’না বিভক্ত
তাইতো এত আপন।

লেখকঃ কবি।

আরও পড়ুন

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.