তোমাকেই বলছি

 

প্রখর তোমার অন্তর-চক্ষু

আমাতে আমি দেখিনা যাহা

শত ক্রোশ দূরে থাকি

হৃদয়ে ক্লান্ত হৃদয় রাখি

কল্পলোকে স্বপ্ন অভিযানে

আমাতে অবলোকন করো তাহা।

 

চৈত্রের খরায় তুমি বৃষ্টি ঝরাও

পাতাবাহারেও ফোটাতে জানো ফুল

অমাবস্যায় আবিষ্কার করতে পারো

অজশ্র তারাখচিত স্বচ্ছ নীলিমা,

সন্ধ্যাবেলায় নীরহারা পাখির লাগি

হৃদয় তোমার হয়ে উঠে ব্যাকুল।

হয়তো তাই আমার শত ভুল

তোমার নয়নে হয়ে উঠে ফুল।

 

অহংকার করি আমার নিরহংকার নিয়ে

গুণীর শ্রদ্ধা করি গুণের অমীয় পিয়ে,

আমার কষ্টেই আমি তুষ্ট

আমার আমিতেই আমি পুষ্ট

লোভে, মোহে চাইনি হতে নষ্ট ——

জানিনা এটাই নাকি তোমাতে আমার

স্বর্গীয় সুখের আধিপত্য,

যার ছোঁয়ায় মুছে যায় তোমার

হৃদয়ে লুকানো অব্যাক্ত কষ্ট।

 

জানিনা তোমার এই হৃদয় ছোঁয়া স্মৃতি

স্মৃতির মিনারে গড়বে প্রাসাদ

নাকি জমে উঠবে অনন্ত ক্লান্তি-অবসাদ।

হোসনে আরা মেঘনা – কবি

আরও পড়ুন