রাজশাহী ইনস্টিটিউট অব বায়োসায়েন্সেস-এ বিশ্ব খাদ্য দিবস পালন

রাজশাহী প্রতিনিধি

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) অধিভুক্ত ‘রাজশাহী ইন্সটিটিউট অব বায়োসায়েন্সেস’-এ বিশ্ব খাদ্য দিবস পালন করা হয়েছে। আজ শুক্রবার (১৬ অক্টোবর) বেলা ১১টার দিকে ইন্সটিটিউটের সেমিনার কক্ষে খাদ্য ও পুষ্টিবিজ্ঞান বিভাগের উদ্যোগে বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করা হয়।অনুষ্ঠানের শুরুতে খাদ্য ও পুষ্টিবিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মো. শাহাবুদ্দীন আহমেদ রচিত খাদ্য প্রযুক্তি বিষয়ক বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করা হয়।
এসময় উপস্থিত ছিলেন রাবির এগ্রোনমি অ্যান্ড এগ্রিকালচারাল এক্সটেনশন বিভাগের অধ্যাপক ড. এম আমিনুল হক, ইন্সটিটিউটের পরিচালক ও রাবির উদ্ভিদ বিজ্ঞান বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. এফ এম আলী হায়দার, ইন্সটিউটের পরিচালক ও মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. হাফিজুর রহমান, রাবির ফলিত রসায়ন ও রসায়ন প্রকৌশল বিভাগের সহকারি অধ্যাপক ড. শাহ মো. শাহান শাহরিয়ারসহ শিক্ষক-শিক্ষার্থীবৃন্দ।
এদিকে, দিবসটি উপলক্ষ্যে রাত ৮টায় জুম অ্যাপে ‘অনলােইন সেমিনার’ অনুষ্ঠিত হয়। সেমিনারে প্রধান আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বীর মুক্তিযোদ্ধা, বিশিষ্ট খাদ্যবিজ্ঞানী নর্থ প্যাসেফিক ইনটারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ (এনপিআইইউবি) এর প্রকৌশল অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. কেএম ফরমুজুল হক।
সেমিনারে অতিথি হিসেবে অংশ গ্রহন করেন অ্যাকশন এগেইনিষ্ট হাঙ্গারের ফিল্ড কো-অর্ডিনেটর সিলভিয়ান ডিউপন্ট, পুষ্ট ও স্বাস্থ্য বিভাগের ডেপুটি হেড মো. ওবায়দুর রশিদ, ডব্লিউএফপি’র প্রোগ্রাম এসিস্ট্যান্ট বখতিয়ার হোসেন, মেঘনা বেভারেজ লিমিটেডের এজিএম মো. আইনুল ইসলাম, মেডিনোভা মেডিকেল সার্ভিস লি. ও ইবনে সিনা ডায়গনস্টিক অ্যান্ড কনসালটেশন সেন্টারের ডায়েটিশিয়ান ও নিউট্রিশন কনসালটেন্ট উম্মে সালমা তামান্না প্রমূখ।
অনলাইন সেমিনারটি সঞ্চালনা করেন ইন্সটিটিউটের খাদ্য ও পুষ্টিবিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মো. শাহাবুদ্দীন আহমেদ। সেমিনারে প্রধান আলোচক হিসেবে বক্তৃতা করেন ড. কেএম ফরমুজুল হক।
সেমিনারে বক্তারা বলেন, অপুষ্টি রোধে খাদ্যের পুষ্টি ও গুনগতমান বজায় রেখে খাদ্য প্রক্রিয়াজাত করা জরুরি। কৃষিজাত পণ্য থেকে মানসম্পন্ন খাদ্য উৎপাদন ও সংরক্ষণের মাধ্যমে বিপুল জনশক্তির খাদ্যচাহিদা পূরণ করা সম্ভব। কোভিড-১৯ পরিস্থিতি খাদ্যনিরাপত্তা ও সংরক্ষণ প্রক্রিয়া নিয়ে নতুনভাবে গবেষণার প্রয়োজনীয়তা সৃষ্টি করেছে।
উল্লেখ্য, ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষ থেকে “রাজশাহী ইনস্টিটিউট অব বায়োসায়েন্সেস” যাত্রা শুরু করে। ইনস্টিটিউটের চারটি বিভাগে প্রায় ২০০ শিক্ষার্থী অধ্যয়ন করছেন।

আরও পড়ুন