জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার হত্যার প্রতিবাদ কর্মসূচীতে বাঁধা

নিজস্ব প্রতিবেদক

জানা যায়, পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা মানববন্ধনের আয়োজন করছিলো। তখন একদল ছাত্র রাজনৈতিক স্লোগান দিয়ে একটি ছাত্রকে ২ নম্বর গেইট থেকে মারতে মারতে ভিসি দপ্তরের সামনে নিয়ে যাওয়া হয়। ঐ মুহূর্তে বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. হোসনে আরা বেগম জলি  এবং ইতিহাস বিভাগের অধ্যাপক সেলিম স্যার গিয়ে তাদেরকে প্রতিহত করেন। এক পর্যায়ে ড. হোসনে আরা বেগম জলি বলেন, তোমরা আমাকে মারো,আমরা অন্যায় করেছি তোমাদের জন্ম দিয়ে, তবু ওকে ছেড়ে দাও।

এ প্রসংঙ্গে বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন শিক্ষিকা বলেন, একজন অধ্যাপকের এই বক্তব্যের পরে আর কি বলার থাকতে পারে!যে ছেলেগুলো মারছিল তাদের পরিচয় এবং তারা কার মদদে জবিতে এতো দ্রুত আবরারের ঘটনা ঘটার পর প্রথম কর্মদিবসে এই কাজটা করলো সেটা খুঁজে বের করা প্রয়োজন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক মিজানুর রহমান  ঘটনা শোনামাত্র বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ে যেই হোক তাকে শারিরীকভাবে আঘাত করা যাবে না।করলে আমি নিজে এর কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

আরও পড়ুন

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.