ব্রাউজিং শ্রেণী

ছোট গল্প

রহিম ড্রাইভার

-রতন ভট্টাচার্য লালসালু কাপড়ের ব্যানার টানানো একটা ট্রাক স্কুলের দিকে যাওয়ার রাস্তার পাশে দাঁড়ানো। হাসি দাঁড়িয়ে আছে ঐ থেমে থাকা ট্রাকের পিছনে লম্বা লাইনের প্রায় শেষের দিকে। ট্রাক সেলে ন্যায্য মূল্যে চাল,ডাল,আলু, ,পেঁয়াজ,তেল বিক্রি…

মহীয়সীর কলাম

চিরায়ত আবেগ -নুরে আলম মুকতা "ওগো কমলিকা তুমি বুঝলেনা আমি কত অসহায়, তোমার ভুবনে ফুলের মেলা আমি কাঁদি সাহারায়.... " আমাদের বাংলা ভাষা সাহিত্যে প্রানের আবেগের যে অপ্রতিরোধ্য গতিবেগ আর প্রকাশ তা পৃথিবীর আর কোন ভাষায় আছে কিনা আমার…

প্রথম দেখা

ইসরাত জেরীন শান্তা বিষাদ ও পুলকের সন্ধিক্ষণ হেমন্তের শুরুটা শ্রেষ্ঠার কাছে সবসময় অধিক আবেগময়। এ সময়ের প্রতিটা সকাল পরিপূর্ণ ভাবে উপভোগ করতে মন চায় তার। সূর্যের মিষ্টি নরম রোদে এক রকমের প্রলেপ মেখে নেয় সে শরীরে। বর্ষার শেষে হেমন্তের…

মাটির মানুষ

জান্নাতুল ফীরদাউসী আজ থেকে ত্রিশ বছর আগে লাল শাড়ী পড়ে বধূ বেশে এসেছিলাম নতুন এক সংসার সাজাতে! যে সংসার মায়ায় ঘিরে রেখেছিলো আমার পতির মা মানে আজ থেকে যিনি আমার শাশুড়ি মা। যেদিন আমি প্রথম এ সংসারে এলাম সেদিন আসমানী রঙের শাড়ী পড়া…

বিচার

সুস্মিতা মিলি মুনিয়ার মা যখন মুনিয়াকে ডান কাঁধে নিয়ে চারতলা থেকে নামছিলো তখন তার বা হাতে ধরা জিনিসটাকে কেউ খেয়াল করেনি। হয়তো কেউ দেখেইনি মুনিয়ার মাকে। সবার আগে ওর বাম হাতের মাঝে ধরা জিনিসটাকে দেখেছিলো দুতলার বাড়ীওয়ালার কাজের মেয়ে কাকলি ।…

ফুল মানুষ-ভুল মানুষ

ফুল মানুষ-ভুল মানুষ- রাবেয়া সুলতানা মুনামাঝে মাঝে ভীষণ অবাক হই, এতটা বছর পরও স্মৃতির দরজায় নাড়া দিতে কি করে পারে মানুষ!রেল স্টেশনে একা বসে আছি, কত বছর আগে এই প্ল্যাটফর্মে তার সাথে আমার প্রথম দেখা হয়েছিলো, কত ভীড় ঠেলে সামনে এসে…

পবিত্রতার ছোঁয়া

সাঈফা এবং নাঈমের আঁটবছরের সংসার জীবন। সুখের পূর্ণতা তাদের জীবনে। দুঃখেরা খুব সহজে তাঁদের স্পর্শ করে না। নাঈমের ব্যবসা ভালোই চলে। মা বাবা স্ত্রী নিয়ে সুখেই দিনাতিপাত করছে। সকল সুখের মাঝেও যে দুঃখ সেটা ছিলো তাদের সন্তানহীনতা। একটি সন্তানের…

আমার একটা ক্যামেরা কেনার শখ

ছোটবেলায় আমাদের বাড়িতে একজন ক্যামেরম্যান কাকু এসেছিল বাবার ছবি তুলতে, জমিজমার জন্য কয়েক কপি ছবি লাগবে তাই। ক্যামেরাম্যান কাকুর গলায় ঝোলানো ছোট একটা বাক্সের মধ্যে ছিল তার ক্যামেরা। মাথা আঁচড়িয়ে, মুখে পাউডার মেখে, বালিশের তলায়…

আনিসুর মামা

-নুরে আলম মুকতা চরম দুষ্টু ছেলেটিই মাকে রক্ষা করে। আনিসুর মামা ছোটবেলা থেকেই দূর্দান্ত প্রকৃতির ছিলেন। নানা ওকে কোনমতেই পড়ার টেবিলমুখী করতে পারছিলেন না। যত রকমের কসরত ছিলো সব যখন শেষ তখন আর উপায় কি? জামাই কে বলো। কিছু করা যায় কি না।…

সফুরা বেওয়া

বয়স পয়ষট্টি থেকে সত্তর এর মত হতে পারে,কিন্তু একদম কুঁজো হয়ে গিয়েছে,যেখানে যায়, বাচ্চারা বলে কুঁজোবুড়ি এসেছে ভিক্ষে নিতে,সবাই ভিক্ষে দিয়ে দাও, কুঁজো হওয়াতে একটু বাড়তি সুবিধাও পাচ্ছে, কোন একবাড়ীর দাওয়ায় বসলেই সবাই এসে ভিক্ষে দিয়ে যায়, আবার…